জাতীয়

স্বচ্ছ মনে আলোচনায় আসার আহ্বান রিজভীর

আওয়ামী লীগের উদ্দেশে বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবীর রিজভী বলেন, ‘একেবারে স্বচ্ছ মন নিয়ে আলোচনার জন্য আসুন। একটা অবাধ, সুষ্ঠু অংশগ্রহণমূলক এবং শান্তিপূর্ণ নির্বাচন হবে।’

শনিবার দুপুরে নয়াপল্টনে বিএনিপর কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত সংবাদ সম্মেলনে এসব কথা বলেন তিনি।

সংবাদ সম্মেলনে তিনি আরও বলেন, ‘নির্বাচন নিয়ে বিএনপির সুনির্দিষ্ট দাবি আছে। সেই দাবিগুলো বিবেচনায় নিতে হবে। শূন্য হাতে, শূন্য টেবিলে আলোচনা হয় না। আমরা যে নীতি ও দাবির ওপর আন্দোলন করেছি, নিশ্চয়ই সেটা নিয়ে সেখানে আলোচিত হতে হবে।’

তিনি বলেন, ‘আগামী নির্বাচনে ভোটাররা যাতে অবাধে ও নিঃসংশয়ে ভোট দিতে পারেন এটা নিশ্চিত করার জন্য যে আলোচনা হওয়া দরকার, আওয়ামী লীগ নিশ্চয়ই সেই আলোচনায় সাড়া দেবে।’

তিনি বলেন, জাতীয়তাবাদের প্রতীক বেগম খালেদা জিয়াকে মিথ্যা মামলায় কারাগারে বন্দি করে রাখবেন আর নির্বাচনের কথা বলবেন সেটা কিভাবে হয়। নির্বাচনের আগে বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াকে মুক্তি দিতে হবে।

বিএনপির এই জ্যেষ্ঠ নেতা বলেন, ‘নির্দলীয় নিরপেক্ষ সরকারের অধীনে আপনাদের নির্বাচন দিতে হবে। পার্লামেন্ট ভেঙে দেয়াসহ নির্বাচন কমিশন পুনর্গঠন করতে হবে। করতে হবে। কারণ প্রধান নির্বাচন কমিশনার তার নিরপেক্ষতা, নির্বাচন নিয়ে সততা খুইয়ে ফেলেছেন, সুতরাং সেটা পুনর্গঠন করতে হবে।’

সংবাদ সম্মেলনে অন্যদের মধ্যে বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা আব্দুস সালাম, যুগ্ম মহাসচিব সৈয়দ মোয়াজ্জেম হোসেন আলাল, সহ-দফতর সম্পাদক মুনির হোসেন, বেলাল আহমেদ প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।